Browsing Category

জানার আছে অনেক কিছু

কদবেলের এত গুন

কদবেলের এতো গুন

আমাদের দেশের নানা রকম মৌসুমি ফলের রয়েছে নানা পুস্টিগুন ও উপকারিতা। মৌসুমি ফলের মধ্যে কদবেল স্বাদ ও পুস্টির দিক দিয়ে অন্যতম। একটু টকস্বাদের হওয়ার কারনে ছোট- বড় সবাই কম বেশি পছন্দ করে থাকে। বর্তমান সময়ে আমাদের দেশের বাজার- রাস্তা ঘাটে, এমনকি স্কুল- কলেজের সামনে কদবেলের পসার খুব বেশি। গরমে কদবেলের ভর্তা বা শরবত আমাদের একটু শান্তি এনে দেয়। শুধু আমাদের শরীরকে প্রশান্ত করে তাই না, কদবেলের আছে নানান ঔষধি গুন। চলুন কদবেলের পুষ্টিগুন ও উপকারিতা

কিভাবে ব্লেন্ডার হবে ঝকঝকে?

রান্নার কাজে ব্লেন্ডারের ব্যবহার তো কারোই অজানা নয়। পেঁয়াজ বাটা বা আদা রসুন কোন কিছুই ব্লেন্ডার ছাড়া হয় কি! কিন্তু এই ব্লেন্ডার হাইজেনিক রাখতে আমাদের কত ধকল পোহাতে হয়! তাছাড়া দাগ তো আর আছেই। চলুন দেখে নেওয়া যাক খুব সহজে  কিভাবে ব্লেন্ডারের দাগগুলো দূর করার মাধ্যমে ব্লেন্ডার করে তুলবেন ঝকঝকে । পদ্ধতি ১ঃ ব্লেন্ডারের অর্ধাংশ গরম পানি দিয়ে পূর্ণ করে নিন। এবার এতে লিকুইড ডিশওয়াশার দিয়ে ব্লেন্ড করুন দুই-তিন মিনিটের মতো। এতে ব্লেন্ডারের দূর্গন্ধ অনেকটা

চশমা কথন।

চশমা বা আইগ্লাস অনেকেরই নিত্যদিনের সঙ্গী। ক্ষনিকের জন্যই চশমা হাত ছাড়া হয়ে গেলে পড়তে হয় বিপদে।  তবে প্রিয় বা দরকারী যাই বলুন চশমার চাই একটু বাড়তি যত্ন। চশমা জড়িত কমন কিছু সমস্যা কিভাবে দূর করবেন তাই দেখে নিন আজ। ১ঃ স্ক্র‍্যাচ দূর করতেঃ চশমায় স্ক্র‍্যাচ পড়া খুবই স্বাভাবিক একটা ব্যাপার হুটহাট করে আবার এ গ্লাস বদল করা কি সম্ভব? এক্ষেত্রে সমাধান কি? সমাধান হিসেবে ব্যবহার করতে পারেন টুথপেস্ট। টুথপেস্ট মোবাইল ফোনের স্ক্র‍্যাচ বা চশমার স্ক্র‍্যাচ

যে ছয়টি কারণে সৃষ্টি হতে পারে ব্রণ।

ব্রণ, যেনো হয়ে উঠেছে নিত্যদিনকার এক সমস্যা। প্রতিদিনের ধুলোবালিতে ত্বকে সৃষ্টি হতে পারে ব্রণ। এছাড়াও ব্রণ সৃষ্টি হতে পারে আরো নানা কারণে। এরকমই ছয়টি কারণ সম্পর্কেই আজকের এই পোস্ট। ১ঃ চকোলেট: এট শোনে অনেকেরই মন ভেঙ্গে যাবে। কিন্তু এটাই সত্য অতিরিক্ত চকোলেট খেলে আপনি কখনোই ব্রণের সমস্যা থেকে মুক্তি পাবেন না। চকোলেটে উপস্থিত উপাদানগুiলো ব্রণ সৃষ্টির অন্যতম কারণ। চকোলেট খাওয়া নিয়ন্ত্রন করতে পারলে আপনি পেতে পারেন উজ্জল ও সুন্দর ত্বক। তাই চকোলেট লাভাররা আজ থেকেই

শেভিং ক্রিমের ব্যাতিক্রমী কিছু ব্যবহার।

শেভিং ক্রিম, এমন একটি জিনিস যা প্রায় সবার ঘরেই পাওয়া যায়। এই একটি উপাদানের রয়েছে ভিন্নধর্মী কিছু ব্যবহার। এক ঝলকে দেখে নিন  শেভিং ক্রিমের ব্যাতিক্রমী কিছু ব্যবহার। ১ঃ পায়ের কালো দাগ দূর করতে ঃ রোদের তীব্রতায় বা প্রতিদিনের ধুলো-বালির প্রাদূর্ভাবে আমাদের হয়ে যায় কালচে। অনেকেরই ব্যস্তাতার কারণে তেমন একটা আয়োজন করে পায়ের যত্ন নেওয়া হয়ে উঠে না। তো, কিভাবে দূর করা যায় এই কালচে ভাব? এজন্য ব্যবহার করতে পারেন শেভিং ক্রিম। এক ক্যাপ লিস্টারিন মাউথ ওয়াশের

কোকোনাট লিপ গ্লস বানিয়ে নিন নিজেই!

শীতের রুক্ষতায় হোক বা গরমে শরীরে পানি শূন্যতার কারণেই হোক ঠোঁট ফাটার সমস্যা তো বারো মাসেই আছে। ন্যাচারাল এই কোকোনাট লিপ গ্লস আপনার ঠোঁটের ফাটা ভাব দূর করবে পাশাপাশি আপনি পাবেন আপনার পছন্দের শেডের লিপ গ্লস।  তো দেখে নিন  কিভাবে খুব সহজে বানিয়ে নিতে পারবেন হোমমেইড লিপগ্লস। যা যা লাগবে ঃ নারিকেল তেল ( অর্গানিক দুই টেবিল চামচ)। ছোট কাঁচের এয়ার টাইট পাত্র। অর্গান অয়েল/  বা অলিভ অয়েল আধা চা চামচ। লিপস্টিক পছন্দের রঙের সামান্য। তৈরী

আমড়ার উপকারিতা

আমড়ার উপকারিতা

আমড়া আমাদের দেশি এক মৌসুমি ফল, যা টক স্বাদের হয়ে থাকে। এই আমড়া অনেক পুস্টিগুনসম্পন্ন। আমাদের দেশ ছাড়াও আশেপাশের কিছু দেশে আমড়া হয়ে থাকে। এই ফল বেশ কয়েকটা রঙের হয়ে থাকে- হলুদ, সবুজ, লাল ও কমলা রঙের। বাংলাদেশে সবুজ রঙের আমড়া হয়ে থাকে। আমাদের দেশে সাধারণত আমড়া লবন, মরিচ দিয়েই খাওয়া হয় বা কাসুন্দি দিয়ে বানিয়ে। আমড়া তরকারি হিসেবেও খাওয়া যায়। তবে আমড়ার খোসা দিয়েও কিন্তু আচার, হালুয়া হয়। আজ আমরা কথা বলব আমড়ার উপকারিতা

এই গরমে ত্বকের স্বস্থিতে বরফ কুচির উপকারীতা।

এই গরমে ঘামে নেয়ে ত্বকের অবস্থা যাচ্ছেতাই!  ত্বক যেনো খোঁজে ফিরছে একটু স্বস্থির পরশ। গরমের এই দিনগুলোতে ত্বকের অনেক সমস্যাই দূর করবে বরফ কুচি। চলুন দেখে নেওয়া যাক শুধু মাত্র বরফ কুচি কি কি উপকার করবে আপনার ত্বকের। ১ঃ ব্রণ সারাতে – ত্বকে ময়লা ও ব্যাকটেরিয়ার আক্রমণে জন্ম নেয় ব্রণ। গরমের দিনে ব্রণের আক্রমণ দিগুণ বেড়ে যায়। এ থেকে মুক্তি পেতে ব্রণের উপর লেবুর রস লাগিয়ে নিন। এরপর বরফ কুচি দিয়ে ভালো করে স্কিন ম্যাসেজ

হাতের কাছের জিনিস দিয়েই রূপচর্চা।

ত্বক ভালো রাখতে ক্যামিকেল যুক্ত প্রডাক্টের চেয়ে শতগুণ বেশি কার্যকর হতে পারে হাতের কাছে থাকা প্রাকৃতিক উপাদান। আজ দেখে নিবো কিভাবে হাতের নাগালে থাকা উপাদান দিয়ে যত্ন নিবেন ত্বকের। এলোভেরা ও লেবুর রস ঃ এলোভেরা ও লেবুর রস দুটোই ত্বকের জন্য খুবই উপকারী। লেবুর রস প্রাকৃতিক ব্লিচিং হিসেবে কাজ করে। ব্যবহারবিধিঃ এক টেবিল চামচ লেবুর রস ও এক টেবিল চামচ এলোভেরা জেল একসাথে মিশিয়ে ত্বকে লাগিয়ে রাখুন আধা ঘন্টার মতো। এরপর ঠান্ডা পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে

দুটি উপাদানে কার্যকরী ফেস ময়েশ্চারাইজার।

ত্বকের  ব্যাপারে আমরা সবাই একটু বেশি যত্নশীল। গরমের এই সময়টাতে আমরা ঠিক বুঝে উঠতে পারিনা যে, কোন ধরনের ময়েশ্চারাইজার আমাদের  স্কিনের জন্য ভালো হবে।  আজ দেখে নিবো কিভাবে মাত্র দুটি উপকরণ দিয়ে আপনি নিজেই নিত্যদিন ব্যবহারযোগ্য ময়েশ্চারাইজার ক্রিম তৈরী করতে পারবেন। যা যা লাগবে ঃ এলোভেরা জেল এক টেবিল চামচ ( বাজারের বোতলের ঘন এলোভেরা জেল হতে হবে) নারিকেল তেল (অর্গানিক) দেড় চা চামচের মতো। প্রস্তুতকরণঃ একটি কাঁচের পাত্রে এক টেবিল চামচ এলোভেরা জেল নিন। এবার এতে