ইফতারে কলমি শাঁকের রোস্ট।

আপনি নিশ্চয় ভাবছেন কলমি শাঁকের আবার রোস্ট কি করে হয় ! নাম টা এই কারণে দেওয়া কারণ, এটি তৈরী করা পর অনেকটাই চিকেন রোস্টের মতো দেখায়। ইফতারে ভিন্ন মাত্রা যোগ করতে পারে কলমি শাঁকের রোস্ট। দেখে নিন রেসিপি..

উপকরণ :.

কলমি শাঁক বিশটার মতো ( ঢাঁটা সহ)

বেসন আধা কাপ।

লাল মরিচ গুড়া সামান্য

গোলমরিচ গুড়া সামান্য

আদা বাটা আদা চা চামচ

রসুন বাটা এক চা চামচ

লবন পরিমাণমতো।

ঠান্ডা পানি পরিমাণমতো

তেল ভাজার জন্য।

প্রস্তুত প্রণালী : প্রথমে শাক ভালো করে ধুয়ে নিন। একটি পাত্রে বেসন নিন। একে একে এতে আদা রসুন, মরিচ, গোলমরিচ , লবন, পানি দিয়ে ঘন গোলা তৈরী করুন। কলমি শাঁক লম্বা ঢাঁটা সহ একসাথে তিনটার মতো নিন। বেসনের গোলায় চুবিয়ে গরম তেলে ছেড়ে দিন। কম আঁচে ভেজে নামিয়ে নিন।

অবশ্যই ডুবো তেলে ভাজার চেষ্টা করুন। সোনালি রঙা হলে নামিয়ে নিন।

আরো বেশি মুচমুচে করার জন্য বেসনের সাথে সামান্য ময়দা যোগ করতে পারেন। এই ধরনের গোলায় ঠান্ডা পানি ব্যবহার করলো ভাজা পর দীর্ঘসময় ক্রিসপি থাকবে।

ইফতারিতে আমরা খুব বেশি ভাজাপোড়া খেয়ে থাকি। তবে স্বাস্থ্যের কথাটাও খেযাল রাখতে হবে। কলমি শাঁকের এই রেসিপি আপনার সাস্থ্যের জন্য উপকারী।

তো আর দেরী কেনো এখনি ট্রাই করে নিন মজাদার এই রেসিপি।

মন্তব্যসমূহ

বর্তমানে শিক্ষার্থী এছাড়া আর কিছু করছি না। সিলেটে থাকি। লেখালেখি আমার পুরাতন শখ। আর কখনোই এই শখ বাদ দিতে চাই না। এছাড়া বলার মতো আর কিছু আপাতত খুঁজে পাচ্ছি না।

মন্তব্য করুন