ঘরে বসেই বানিয়ে নিন মজাদার গরম মশলা পাউডার

ঘরে বসেই বানিয়ে নিন মজাদার গরম মশলা পাউডার

আমাদের দেশের যাবতীয় রান্না গুলোর মধ্যে একটা ব্যাপার খুবই কমন হয়ে থাকে। আর তা হচ্ছে বিভিন্ন রকম এর মশলার ব্যবহার। যে কোন ধরণ এর রান্নাই হোক না কেন, তাতে বিচিত্র সব মশলার ব্যবহার আমাদের দেশের রাধুনীদের মধ্যে খুবই সাধারণ ঘটনা। বিরিয়ানি হোক কিংবা সাধারণ একটা সবজি কিংবা ডাল, রান্নার মধ্যে নানান রকম এর মশলার নানান রকম ব্যবহারই আমাদের দেশের খাবার গুলোকে অন্য যে কোন জায়গা থেকে আলাদা করে তোলে। আর এই নানান রকম মশলার মধ্যে খুব কমন একটি মশলা হচ্ছে গরম মশলা পাউডার।

গরম মশলা পাউডার হচ্ছে বিভিন্ন মশলার সমন্বয়ে বানানো একটি মশলার মিশ্রণ। এই মশলাটি বিভিন্ন মানুষের হাতে বিভিন্ন ভাবে তৈরী হয়ে থাকে। প্রায় সব রাধুনীদের কাছেই তাদের নিজস্ব একটি গরম মশলার রেসিপি থেকে থাকে। এতে থাকে উপাদানের ভিন্নতা। সবাই যে একই উপকরণ ব্যবহার করে গরম মশুলা পাউডার বানিয়ে থাকেন তা কিন্তু নয়। বিভিন্ন জন বিভিন্ন ভাবে বিভিন্ন উপকরণ ব্যবহার করে গরম মশলা পাউডার বানিয়ে থাকেন। আবার এই সব উপকরণ এর পরিমাণের মধ্যেও কিন্তু অনেক ধরণ এর ভিন্নতা থেকে থাকে। কিছু উপকরণ হয়ত কেউ বেশি পরিমাণে দিয়ে থাকেন। আবার কেউ বা হয়ত একটু কম পরিমাণ সকল উপকরণ ব্যবহার করে থাকেন। তবে যত যাই হোক না কেন, এই অসাধারণ মশলাটি ছাড়া আমাদের দেশের খাবার রান্না করাটা প্রায় অসম্ভব একটা কাজই বটে।

আমদের দেশে গরম মশলা পাউডার বানাবার জন্য বিভিন্ন রকমের পদ্ধতি ব্যবহার করা হয়ে থাকে। আবার আমাদের দেশের বিভিন্ন রান্না করার জন্য এই গরম মশলা পাউডার ব্যবহার করার পদ্ধতিও বিভিন্ন। কেউ কেউ রান্নার শেষে এই মশলাটি অল্প করে ব্যবহার করে থাকেন। আবার কেউ কেউ হয়ত রান্নার শুরুতে অন্যান্য মশলার সাথে এই গরম মশলা পাউডার কষিয়ে নিয়ে থাকেন। প্রায় সব ধরণ এর রান্নার মধ্যেই কম বা বেশি পরিমাণে এই গরম মশলা পাউডার ব্যবহার করা হয়ে থাকে। বিশেষ করে মাংস রান্নার জন্য এটি তো একটি অপরিহার্য মশলা। আসুন কিভাবে এই গরম মশলা পাউডার আপনি ঘরে বসেই বানিয়ে নিতে পারবেন তা জেনে নেই।

গরম মশলা পাউডার বানাতে যে যে উপকরণ ব্যবহার করতে হবে

গরম মশলা পাউডার এক এক রাধুণী এক এক ভাবে বানিয়ে থাকেন। এই মশলা বানাতে বিভিন্ন ধরণ এর আস্ত মশলা ব্যবহার করা হয়ে থাকে। এই সব মশলা গুলোই খুব সাধারণ। আমাদের রোজ কার রান্না করার জন্য আমরা যে সকল আস্ত মশলা ব্যবহার করে থাকি সাধারণত সেই মশলা গুলোই বিভিন্ন অনুওয়াতে মিশিয়ে এই গরম মশলা পাউডার বানানো হয়ে থাকে। এই সব মশলা গুলোই প্রায় সব সময় আমাদের ঘরের মধ্যেই থেকে থাকে। আর যদি নাও থাকে তবুও খুব কম সময়ের মধ্যেই খুব সহজেই আপনি যে কোন দোকান থেকে এগুলো কিনে নিতে পারবেন। আসুন এই গরম মশলা পাউডার বানাবার জন্য কি কি উপকরণ দরকার হবে তা এক এক করে জেনে নেয়া যাক।

আস্ত শুকনা মরিচ ৫ থেকে ৬টি

আস্ত তেজ পাতা ২ থেকে ৩টি

আস্ত বড় এলাচ ২টি

আস্ত ছোট এলাচ ৮ থেকে ১০টি

আস্ত দারচিনি ৩ থেকে ৪ টুকরা

আস্ত লবঙ্গ ৫ থেকে ৬টি

আস্ত কালো গোল মরিচ ১০ থেকে ১২টি

আস্ত জিরা ১ চা চামচ

আস্ত ধনে ১/২ চা চামচ

গরম মশলা পাউডার যে পদ্ধতিতে বানাতে হবে

ঘরে বসে গরম মশলা বানাবার পদ্ধতি খুবই সহজ। আপনি কোন রকম কষ্ট ছাড়াই অতি সহজে এটি ঘরে বসে বানিয়ে নিতে পারবেন। এর জন্য আপনাকে বাড়তি খুব বেশি সময় কিন্তু ব্যয় করতে হবে না। অথচ এই সামান্য একটু কষ্টের বিনিময়ে আপনার বেশ কিছুটা টাকা কিন্তু সাশ্রয় হয়ে যাবে। কারণ বাজারে যে সকল মিক্স গরম মশলা পাউডার পাউডার কিনতে পাওয়া যায় সেগুলো কিন্তু পরিমাণ এর তুলনায় দামে একটু বেশিই হয়ে থাকে। আর সেই মশলার মধ্যে ভেজাল দ্রব্য মিশিয়ে দেবার ভয়ও কিন্তু একটু আধটু থেকেই যায়। তাই ঘরে বসে গরম মশলা বানিয়ে নেয়াটা এই সব দিক থেকেই আপনাকে স্বস্তি এনে দেবে। আসুন কি কি ঢ্যাপ অনুসরণ করে ঘরে বসে এই গরম মশলা পাউডার বানাতে হবে তা দেখে নেয়া যাক।

১ম অংশ

প্রথমেই আস্ত মশলা গুলো খুব ভাল করে ধুয়ে পরিস্কার করে নিতে হবে। এর পরে একটা বড় ঝাঝড়ির উপর এই মশলা গুলো ছড়িয়ে দিতে হবে। এই অবশ্তায় মোটামুটি আধা ঘন্টা কিংবা চল্লিশ মিনিট রেখে দিতে হবে। এতে করে মশলা থেকে বাড়তি পানি ঝরে যাওয়া শুরু হয়ে যাবে। এরপরে এই মশলা গুলো রোদে শুকাতে দিতে হবে। মোটামুটি দুই দিন এই মশলা গুলো কড়া রোদে শুকাতে দিতে হবে। এই সময় এর মধ্যে এই আস্ত পরিস্কার মশলা গুলো খুব সুন্দর ভাবে শুকনা শুকনা হয়ে যাবে।

২য় অংশ

এখন একটা সম্পুর্ণ শুকনা কড়াই নিতে হবে। এই কড়াই এর মধ্যে দিতে হবে। খুব অল্প আঁচে এই মশলা গুলো ভাজতে শুরু করতে হবে। এবং ভাজার সময় অনবরত খুনতি দিয়ে এই মশলা গুলো নাড়া চাড়া করতে হবে। এই ভাবে অবশ্য খুব বেশি সময় ধরে ভাজার দরকার নেই। মোটামুটি দশ মিনিট থেকে বারো মিনিট সময় নিয়ে ভাজলেই চলবে। এর পরে চুলা বন্ধ করে দিতে হবে।

৩য় অংশ

চুলা বধ করার পর সাথে সাথেই আস্ত গরম মশলা গুলো গুড়ো করা যাবে না। কিছু সময় অপেক্ষা করতে হবে যাতে করে এই মশলা গুলো ঠান্ডা হয়ে যায়। খুব বেশি সময় অপেক্ষা করার দরকার হবে না। মোটামুটি আধা ঘণ্টা থেকে ৩৫ মিনিট অপেক্ষা করলেই হবে। এই সময়ের মধ্যে এই মশলা গুলো মোটামুটী রুম টেম্পারেচারে চলে আসবে। তখন খুব সহজেই এগুলোকে গুড়ো করে নেয়া যাবে।

আস্ত মশলা গুলোকে প্রথমে ব্লেন্ডারে সুন্দর করে মিহি করে গুড়া করে নিতে হবে। তবে এক বারে কিন্তু এই আস্ত মশলা গুলো মিহি ভাবে গুড়া হবে না। এর জন্য একে এক বার ব্লেন্ড করে একটা চালনির মধ্যে চেলে নিতে হবে। তারপরে চালনিতে যেই বাকি মশলা গুলো থাকবে সেগুলো আরো এক বার ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড করে মিহি করে গুড়া করে নিতে হবে। আপনার কাছে যদি ব্লেন্ডার না থাকে তবে আপনি শীল পাটা ব্যবহার করেও এই গরম মশলা গুড়া ঘরে বসে বানিয়ে নিতে পারবেন। তবে সব ক্ষেত্রেই খেয়াল রাখতে হবে যেন মশলা খুব মিহি ভাবে গুড়া হয়। এর পরে একটা এয়ার টাইট মশলা কৌটার মধ্যে এই গরম মশলা গুড়া গুলো রেখে দিতে হবে। অনেক দিন পর্যন্ত এগুলো ভাল থাকবে।

মন্তব্যসমূহ

আমি সাদিয়া রিফাত ইসলাম। একজন মা , হোমমেকার এবং ব্লগার। ভালভাসি রান্না করতে, বই পড়তে এবং লেখালেখি করতে।

মন্তব্য করুন