রুপার গয়নার যত্নআত্তি

রুপার গয়নার যত্নআত্তি

গয়নাগাটিতে আমাদের মেয়েদের সৌন্দর্য যেনো ফুটে উঠে আরও বিস্ময়কর ভাবে। গয়না পছন্দ করে না এমন মেয়ে খুঁজে পাওয়া দুস্কর। অনেকে বড় আবার অনেকে ছোট ডিজাইনের গয়না পছন্দ করে থাকে। রুপার গয়নার প্রচলন ও আভিজাত্য আমাদের দেশে বহুদিন ধরেই প্রচলিত। আমাদের দেশের গ্রামের বালিকা বা নতুন বধুরা কানের রুপার দুল , পায়ে রুপার মল পরতেন।

মাঝে রুপার চাহিদা কমে সোনার গয়নার প্রতি বেশি আকৃষ্ট হয় মানুষ। কিন্তু বর্তমানে সোনার গয়নার অনেক দামের কারনে আবার রুপার গয়নার প্রতি মানুষের আকর্ষণ আবার বেড়েছে। এখনকার দিনে রুপা দিয়ে গয়না গড়িয়ে সোনার প্রলেপ লাগানো হচ্ছে, যা গোল্ড-প্লেটেড গয়না নামে পরিচিত।  

রুপার গয়না যত্ন করে ব্যবহার করলে অনেকদিন পর্যন্ত নতুনের মত থাকে। তবে ঠিকঠাকভাবে যত্ন না করলে রুপার গয়না কালো হয়ে ব্যবহার অনুপযোগী হয়ে যায়। তাই এর সঠিকভাবে যত্ন নেয়াটা জরুরি।

রুপার গয়না ব্যবহারের আগে ও পরে কিছু করনীয় কাজ

** রুপার গয়না পরিধানের আগেই সব ধরনের লোশন ও পারফিউম শরীরে ব্যবহার করে নিন। কারন গয়না পরিধানের পরে পারফিউম ব্যবহার করলে গয়নায় লাগলে সে জায়গা কালো হয়ে যেতে পারে।

** ব্যবহার করার পরে কিছুক্ষন বাতাসে বা খোলা রেখে ঘাম শুকিয়ে নিতে হবে।  

** রুপার ওরনামেন্টস বক্সে রাখার আগে টিস্যুতে জড়িয়ে রাখতে হবে।

** রুপার গয়না তুলে রাখতে এয়ার টাইট বক্স ব্যবহার করুন।

** প্রতিটা গয়না আলাদা আলাদা ভাবে রাখতে হবে। একসাথে জড়িয়ে যাতে না যায়।

রুপার গয়না পরিস্কারের ৩ ঘরোয়া  উপায়

** সাবান ও পানি

রুপার গয়না পরিস্কার করার জন্য সাবান গুলানো পানি ব্যবহার করা খুব সুবিধাজনক। একটা বাটিতে পানির সাথে সাবান গুলিয়ে নিন। এতে কিছুক্ষন গয়না ভিজিয়ে রেখে টুথব্রাশ দিয়ে হালকা ঘষে পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।   

** টুথপেস্টের ব্যবহার

 একটা টুথব্রাশে সাদা রঙের টুথপেস্ট লাগিয়ে রুপার গয়নায় হালকা করে ঘষে ধুয়ে ফেলুন। এতে রুপার গয়নার কালচে ভাব কমে যাবে।

** লবন ও লেবুর ব্যবহার

এক টুকরা লেবুর উপরে লবন দিয়ে রুপার গয়নায় হালকা করে ঘষুন। এরপরে ধুয়ে ফেলুন। লেবুর সাইট্রিক এসিড ও লবন রুপার কালচে ভাব কমাতে সাহায্য করবে।

বাড়তি সতর্কতা

** অনেক সময় রুপার গয়নায় নানা রকম পাথর ব্যবহার করা হয়ে থাকে। ব্যবহার ও পরিস্কার করার সময় বাড়তি সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে, যাতে পাথর না পরে যায়। এতে গয়নার সৌন্দর্য কমে যাবে অনেকখানি।

মন্তব্যসমূহ

নিজের পরিচয় দিতে গেলে সবার আগে বলব, আমি একজন মা। তার সাথে একজন হোমমেকার, শিক্ষক ও ব্লগার। লিখতে ভালবাসি। তার চাইতে ভালবাসি পড়তে, জানতে। এইতো! ছোট এক জীবনে অনেক কিছু, আলহামদুলিল্লাহ!!

মন্তব্য করুন