All Posts By

নাহিদুল ইসলাম

ইনকগনিটো/প্রাইভেট মোড ব্যবহার করলে কি আমাকে কেউ ট্রাক করতে পারবে না ??

মোবাইল ফোন বা কম্পিউটার যাই হোক না কেন আমরা সবাই কিন্তু ইন্টারনেট ব্রাউজ করার জন্য কোন না কোন ব্রাউজার ব্যবহার করে থাকি। এর মধ্যে পৃথিবীর নামি দামি কম্পানির অন্যতম ব্রাউজার গুগলের ক্রম ব্যবহার করে নি এমন মানুষ খুব কমই আছে। এছাড়া বর্তমানে ইউসির বিরক্তিকর অ্যাডের কারনে অনেক মোবাইল ব্যবহারকারীরা গুগল ক্রমের দিকে ঝুকে পরেছে। ব্রাউজিং করার সমর অনেকেই লক্ষ্য করেছেন যে ক্রোমে ইনকগনিটো মোড নামে একটি অপশন রয়েছে। অনেকেই এর ব্যবহার জানেন আবার অনেকে জানেন

Social Media

Social Media তে আপনার Security কতটুকু স্ট্রং?

আজকাল আমাদের সধারন লাইফের পাশাপাশি একটি ভার্চুয়াল লাইফ চলে এসেছে। আর এই লাইফ হলো আমাদের Socila Media প্লাটফর্মগগুলো। আমাদের দেশে Socila Media বলতে সবাই ফেইসবুককেই বুঝে থাকে। আমাদের মধ্যে অনেকেই সাধারন লাইফের চেয়ে এই Social Media গুলোতে সময় কাটাতে বেশি পছন্দ করে। এই কারনে স্বাভাবিকভাবেই আমাদের অনেক স্পর্সকাতর তথ্য এখানে থাকে। এই অবস্থায় যদি আপনার একাউন্ট অন্যের দখলে চলে যায় মানে হ্যাক হয়ে যায় তাহলে তো চিন্তার কোন শেষ থাকে না। তো কি কি পদক্ষেপ

Gps

Gps সিস্টেমে সঠিক লোকেশন কেন দেখাচ্ছে না ?

আজকাল পৃথিবীর যে কোন প্রান্তে চলে যান না কেন আপনার রাস্তা চেনার জন্য কাউকে জিজ্ঞাসা করতে হবে না। আপানার হাতে আছে ফোন। আপনি চটপট ফোনের Gps এবং ম্যাপের সাহায্যে সহজেই আপনার গন্তব্যে চলে যেতে পারবেন। কিন্তু এত উন্নত প্রযুক্তি থাকা সত্ত্বেও অনেক সময় Gps ভুল লোকেশন দেখায়। কিন্তু কেন দেখায় তা কি আমরা জানি ? Gps একটিভ করে আমরা যে লোকেশন দেখতে পাই তার জন্য ডিভাসকে দুটি টেকনোলজির সাহায্য নিতে হয়। যেমন ধরুন আপনি পৃথিবীর

ইংরেজি শেখা

ইংরেজিতে কথা বলা শিখুন স্মার্টফোনের সাহায্যে

পৃথিবীতে ৩৭২ মিলিয়ন মানুষ প্রধান ভাষা হিসাবে ইংরেজি ব্যবহার করে ( সূত্র: statista.com )। ইংরেজি শেখার গুরুত্ত্ব কম বেশি আমরা সবাই জানি।বর্তমানে চাকুরির ইন্টারভিউ থেকে শুরু করে বিদেশে যাওয়া সহ প্রায় সকল ক্ষেত্রেই ইংরেজি শেখা গুরুত্বপূর্ন হয়ে দাঁড়িয়েছে। ইংরেজি শেখা খুব কঠিন কিছু না তেমনি দুই তিন দিনের মধ্যেও ইংরেজি শিখে ফেলতে পারবেন না। আজকাল ইংরেজি শেখার অনেক মাধ্যম রয়েছে। এর মধ্যে সবচেয়ে আকর্ষনীয় দিক হলো প্রযুক্তিকে ব্যবহার করে ইংরেজি শিক্ষা। স্মার্টফোনে অ্যাপ ইনস্টল করে

অতিরিক্ত গরম

আপনার মোবাইল কি অতিরিক্ত গরম হচ্ছে ?

আজকাল আমাদের সবার একটি কমন সমস্যা হচ্ছে ফোনের হিটিং প্রবলেম। হোক সেটা আপনার দামী ফোন, সস্তা ফোন, এনড্রয়েড ফোন বা আইফোন। আপনার মনে হয়তো একটা প্রশ্ন সবসময় থেকেই যায় যে ফোন কি অতিরিক্ত গরম হচ্ছে? নাকি যেটুকু গরম হচ্ছে তা স্বাভাবিক। প্রথমেই বলে রাখি যে কোন ধরনের ইলেক্ট্রনিক্স গ্যাজেট বা যন্ত্র কাজ করার সময় অবশ্যই গরম হবে। যেমন ধরুন আপনার গাড়ি চলার সময় তার ইঞ্জিন গরম হয়ে যায়, ইঞ্জিন ঠান্ডা করার জন্য রেডিয়েটর লাগানো থাকে।

এয়ার কুলার

বাড়িতে বসে প্লাস্টিকের জার দিয়ে বানিয়ে ফেলুন এয়ার কুলার

গ্রীষ্মকাল চলে এসেছে। গ্রীষ্মকালের এই প্রখর গরমে বিরক্ত হয় না এমন মানুষ খুজে পাওয়া দুষ্কর। গরমের এই চরম ক্লান্তির সাথে রয়েছে লোড শেডিং যা এই বিরক্তের মাত্রা আরো বাড়িয়ে দেয়। একটা এয়ার কুলার আপনাকে এই গরমের ক্লান্তির হাত থেকে বাঁচাতে পারে। আপনার নিজের হাতের তৈরি এয়ার কুলার আপনাকে গরমে স্বস্তির নিঃশাস দিতে পারে । এই এয়ার কুলার আপনি সহজেই স্থানান্তর করতে পারবেন – মানে আপনি ঢাকা থেকে বাড়িতে গেলেন ৭ দিনের সফরে, সেখানেও আপনি এয়ার

স্মার্টফোনের স্টোরেজের

স্মার্টফোনের স্টোরেজের জায়গা বাচাঁন

বর্তমানে স্মাটফোনের ব্যবহার দিন দিন বেড়েই চলেছে। আধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহারের ফলেই মূলতো মানুষ স্মার্টফোনের দিকে এতটা ঝুঁকে পড়েছে। কারন বর্তমানের স্মার্টফোন গুলোর সক্ষমতা অনেকটা কম্পিউটারের কাছাকাছি চলে গিয়েছে। এসব কিছুর সাথে সাথে স্মার্টফোনের স্টোরেজের পরিমানও বেড়ে চলেছে। এর পরও কিন্তু আমরা স্টোরেজ আরও বেশি চাই। আমাদের মনে হয় এত কম স্টোরেজে কি হবে! আপনি একটু চিন্তা করে দেখুন মাত্র কয়েক বছর আগের ফোন গুলোতে ইন্টারনাল স্টোরেজ থাকতো ৫০ এম্বির মতো। কিন্তু বর্তমানে ১৬ জিবি ৩২

হার্ডওয়্যার জনিত সমস্যা

কম্পিউটারের হার্ডওয়্যার জনিত সমস্যা সমাধান করে সার্ভিসিং খরচ বাচান

কম্পিউটার আমাদের প্রতিদিনের সঙ্গী। কম্পিউটার ব্যবহার করতে গিয়ে অনেক সময় আমরা বিভিন্ন ধরনের সমস্যায় পড়ে থাকি। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি সম্মুখীন হতে হয় হার্ডওয়্যার জনিত সমস্যা গুলোতে। হার্ডওয়্যার বিষয়ে সচেতন হলে এই সমস্যা গুলো এড়ানো যায়। কিন্তু তারপরও কিছু কিছু হার্ডওয়্যার জনিত সমস্যা আমরা না চাইলেও চলে আসে। এই সাধারন সমস্যা গ্রাহ্য না করে এড়িয়ে গেলে পরবর্তীতে বড় সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। বিশ্বাস হচ্ছে না ? আপনাদের একটা গল্প বলি। আমার এক বন্ধু হটাৎ করে

কম্পিউটারের স্পিড

কম্পিউটারের স্পিড বাড়ানোর টিপস

কম্পিউটার ব্যবহারকারীদের প্রায়ই কিছু সাধারন সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। আমাদের মতো সাধারন ব্যবহারকারীদের Cpu ওভার ইউস এর মতো সমস্যা থেকে শুরু করে কম্পিউটারের স্পিড, লোডিং টাইম বৃদ্ধি এর মতো নানান সমস্যা সবসময় চলতেই থাকে। কম্পিউটারের স্পিড কমে গেলে অনেকে এই সব কারনকে ভাইরাসের ওপর দোষ দিয়ে চালিয়ে দেয়। কিন্তু যখন তারা এন্টিভাইরাস ব্যবহার করে তখন এই স্পিড আগের তুলনায় আরো কমে যায়। আসলে কম্পিউটার ভাইরাস মুক্ত থাকলেও এই ধরনের ছোট খাটো সমস্যা হতে পারে। ভাইরাসের